নতুনদের তো জায়গা দিতে হবে : তোফায়েল

প্রকাশিত: ৭:২৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৭, ২০১৯ | আপডেট: ৭:২৭:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৭, ২০১৯
নতুনদের তো জায়গা দিতে হবে : তোফায়েল

সদ্য বিদায়ী বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, আমরা যারা প্রবীণ তাদের তো নতুনদের জায়গা দিতে হবে; একসময় তো যেতেই হবে। তবে আমি খুশি, বাণিজ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করে বাংলাদেশের ইতিহাসে রেকর্ড করেছি। আমি এমপি আছি, থাকব। এমপি হিসেবেই কাজ করে যাব। আমরা সবাই একটি পরিবারের মতো কাজ করেছি।

সোমবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে বিদায়ী সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

যোগ্য, সৎ ও আদর্শবান ব্যক্তিদের নিয়েই নতুন মন্ত্রিপরিষদ গঠন করা হয়েছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, আমার মনে হয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পরীক্ষিতদের জায়গা দিয়েছেন।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী তার পছন্দমতো যোগ্যদের মন্ত্রিপরিষদে নিয়েছেন। নতুন যারা কেবিনেটে জায়গা পেয়েছেন তারা সবাই যোগ্য। আমি মনে করি প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে তারা ভালোভাবেই সরকার পরিচালনা করে দেশকে অগ্রগতির দিকে নিয়ে যাবেন।

বিদায়ী বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমি ৭২ সালে ২৮ বছর বয়সে প্রথম প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক সচিব হিসেবে কাজ শুরু করি। এরপর ১৯৭৪ সালে বঙ্গবন্ধু রাষ্ট্রপতি হলে বিশেষ সহকারী ছিলাম। এরপর দীর্ঘ ২১ বছর সচিবালয়ে ঢুকিনি। ১৯৭৫ সালে ১১ জুলাই শেষ সচিবালয়ে ঢুকি। এরপর ১৯৯৬ সালের ২৪ জুন শিল্প ও বাণিজ্যমন্ত্রী হই। তার আগে নির্বাচনকালীন সরকারে শিল্প ও গৃহায়ণমন্ত্রী ছিলাম।

বাণিজ্য সচিব মফিজুল ইসলাম বলেন, তোফায়েল আহমেদ একজন জীবন্ত কিংবদন্তি। নেতা হিসেবে তার বড় সাফল্য বাংলাদেশের স্বাধীনতা। তিনি গত ৫ বছর সফলভাবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তার এ চলে যাওয়াটা চলে যাওয়া না। তার ভালোবাসা আমরা সব সময় পাব।